অনলাইনে আছেন

  • জন ব্লগার

  • ১৮ জন ভিজিটর

নোটিশ বোর্ড

বাংলাদেশে মোসাদ...

লিখেছেন আফগানী ২০২২-০৫-২৬ ২২:৩৫:০৯

  ঢাকা বিমানবন্দর। নভেম্বর ২০০৩। একটি বিমান ছেড়ে যাবে ব্যাংককের উদ্দেশ্যে। সব কিছু ঠিকঠাক। এর মধ্যে বিমানে ঘটাঘট উঠে পড়লেন সিকিউরিটি অফিসাররা। ইনকিলাব পত্রিকার এক সাংবাদিক সালাউদ্দিন শোয়েব চৌধুরিকে তল্লাশি করা শুরু করলেন। তারপর নিশ্চিত হয়ে তাকে নিয়ে নেমে গেলেন বিমান থেকে। ইনকিলাব পত্রিকা এদেশের হুজুরবান্ধব পত্রিকা। এই পত্রিকার সাংবাদিক ছিলেন সালাউদ্দিন শোয়েব চৌধুরি।    গোয়েন্দা তথ্য পেয়ে ডিবি তাকে এরেস্ট করে। পরে তার কাছে তল্লাশি করে সে তথ্যের সত্যতা পায়। শোয়েব চৌধুরির কাছে ত...বাকিটুকু পড়ুন

০ টি মন্তব্য      ৩২২ বার পঠিত         
সকল পোস্ট (ক্রমানুসারে)

খুব সম্ভবত বিশ্ব আরো একটি পরমাণু হামলা দেখতে যাচ্ছে!

লিখেছেন NAIMUL ISLAM ২০২২-০৪-১৭ ০৪:০৬:১২

খুব সম্ভবত বিশ্ব আরো একটি পরমাণু হামলা দেখতে যাচ্ছে!।।বাকিটুকু পড়ুন

০ টি মন্তব্য      ৫০ বার পঠিত         

পার্থিব জীবনের সাজ-সজ্জা ও ক্রীড়া-কৌতুক...

লিখেছেন জিবরান ২০২২-০৪-১৪ ১৯:৩১:৩৪

"আপনি নতুন বিয়ে করেছেন, রাস্তা দিয়ে আপনার স্ত্রীকে নিয়ে যাচ্ছেন। হঠাৎ করে তিনি হোঁচট খেয়ে পড়ে গেলেন। আপনি দ্রুত গিয়ে তুললেন, সান্ত্বনা দিয়ে বললেন, "আমি কখনই তোমার কিছুই হতে দেব না, আমি তোমাকে অনেক ভালোবাসি! নতুন বিবাহের মধ্যে এরকম ভালোবাসাই থাকে... এরকম আবেগের মধ্য দিয়েই আমরা যাই... এভাবে আমাদের জীবনের অনেকগুলো স্তর থাকে... বিবাহের প্রাথমিক অবস্থা থেকে সন্তান-নাতি-নাতকুর বয়স পর্যন্ত। আমাদের জীবনের অবস্থা কেমন? ছোটবেলার খেলা নিয়েই পড়ে থাকি, কিছুটা বড় হলে পড়ালেখা ধরি, আর কিছুটা বড় হলে...বাকিটুকু পড়ুন

০ টি মন্তব্য      ৫০ বার পঠিত         

যে দশটি উপায়ে আমাদের পাপ সমূহ ক্ষমা করে দেওয়া হয়...

লিখেছেন জিবরান ২০২২-০৪-১৪ ১৯:৩০:২৬

এখন, শেষ তিনটি আমাদের হাতে নেই। প্রথম ছয়টির জন্য আমরা চেষ্টা করতে পারি। রাসূলুল্লাহ (স) এর শাফায়েত পাওয়ার জন্য আমরা চেষ্টা করতে পারি আযানের পরের দুয়া পড়ে। মানুষের দুয়া এবং মানুষের পুণ্য কাজ উপহার পাওয়ার জন্যেও আমরা চেষ্টা করতে পারি। শেষ তিনটি আমরা চাই না। কিন্তু এগুলো চূড়ান্ত পরিণতির চেয়ে ভালো। যেটা হলো জাহান্নামের আজাব। পরবর্তী যে তিনটি উপায়ে আমাদের পাপসমূহ ক্ষমা করে দেওয়া হয়, আমরা সেগুলো কামনা করি না। এগুলো আমাদের লক্ষ্য নয়। কিন্তু, যদি এগুলো এসে পড়ে আমরা তখন নিজেদের এ বলে সান্ত্বন...বাকিটুকু পড়ুন

০ টি মন্তব্য      ৫৪ বার পঠিত         

আল্লাহর কাছে চাওয়ার অভ্যাস করুন...

লিখেছেন Shahmun ২০২২-০৪-১৪ ১৯:২৮:২৫

আল্লাহর কাছে চাওয়াটা যে কত বড় সাওয়াবের কাজ আমি বলে বুঝাতে পারব না। আপনি যদি কোন বিপদে পড়ে আল্লাহর কাছে চান, এটা যে আল্লাহর কাছে কত প্রিয়, কত প্রিয় আমি বলতে পারব না। এতটুকুই বলি, এই চাওয়ার কাজটাই আপনার জন্য প্রতিদান। বিশ্বাস করেন, এই পৃথিবীতে আল্লাহর ইবাদত এর কাজ ছাড়া অন্য কিছুর মূল্য নেই আখেরাতের জন্য। আল্লাহর কাছে চাওয়া বা দুআ করা মুখ্য ইবাদাত এর একটি। যে কারণেই হোক, বিপদে পড়ে হোক, কোন সমস্যায় পড়ে হোক, আপনি যদি আল্লাহর কাছে চাইতে পারেন এইটা আপনার সৌভাগ্য। অনেকেই প্রথমে আল্লাহর কাছে চায় না কোন স...বাকিটুকু পড়ুন

০ টি মন্তব্য      ৫১ বার পঠিত         

আসুন, কুরআনের দেখানো পথে জীবন পরিচালনা করি...

লিখেছেন Shahmun ২০২২-০৪-১৪ ১৯:২৭:২০

আদম আলাইহিস সালাম কোথায় বাস করতেন? জান্নাতে। এরপর তাঁকে কোথায় নামিয়ে দেওয়া হয়? পৃথিবীতে। পৃথিবীতে এমন অনেক মানবীয় আবেগ-অনুভূতি রয়েছে যা আদম (আ) আগে কখনো অনুভব করেননি। পৃথিবীতে ভয় আছে, দুঃখ আছে, ব্যথা আছে, ক্ষুধা আছে। এই অভিজ্ঞতাগুলোর কোনোটাই জান্নাতে নেই। পৃথিবীতে দুশ্চিন্তা আছে, মানসিক চাপ আছে। সকল নেতিবাচক অনুভূতিগুলো এই দুনিয়াতে আছে। তাই, আদম (আ) আতংকিত হয়ে পড়লেন। হাওয়া (আ) ও উদ্বিগ্ন হয়ে উঠলেন। কিভাবে আমরা এখানে বসবাস করবো! এটা তো নিদারুণ এক কষ্টের জায়গা! তো, আল্লাহ কী করলেন...বাকিটুকু পড়ুন

০ টি মন্তব্য      ৫১ বার পঠিত         

আল্লাহর দাসত্বের ৫টি গুণ...

লিখেছেন Shahmun ২০২২-০৪-১৪ ১৯:২৫:০৪

দাস আল্লাহর প্রতি বান্দার শ্রেষ্ঠ একটা উপাধি। এটা তার জন্য সর্বোচ্চ সম্মানিত বিষয়। তাই আমরা দেখি, আল্লাহ তা’আলা যখন রাসূল ﷺ কে এই নিম্ন দুনিয়া থেকে সর্বোচ্চ স্থান তাঁর নিকটে নিয়ে গেলেন, তখন রাসূল ﷺ কে আব্দ বা দাস (বান্দা) হিসেবেই আখ্যায়িত করেছেন। [সূরা বনী ইজরাইল : ১] আল্লাহর দাস হতে হলে আপনার মাঝে ৫টি গুণ থাকতে হবে। এটা ইবনে তাইমিয়া (রাহিমাহুল্লাহ) এর কথা। ইবাদত ও দ্বীন বিষয়ে আল্লাহ তা’আলা বলেন, وَمَآ أُمِرُوٓا إِلَّا لِيَعْبُدُوا اللَّهَ مُخْلِصِينَ لَهُ الدِّينَ حُنَف...বাকিটুকু পড়ুন

০ টি মন্তব্য      ৩৯ বার পঠিত         

পার্থিব এমন কোন ভালোবাসা নেই, যে ভালোবাসা অবশেষে আপনাকে দংশন না করে ছাড়বে...

লিখেছেন Shahmun ২০২২-০৪-১৪ ১৯:২৩:৪৩

আল্লাহর একটি নাম হলো আল-ওয়াদুদ। এটি সূরা বুরুজে এসেছে। "ওয়া হুয়াল গাফুরুল ওয়াদুদ।" তিনি হলেন গাফুর এবং ওয়াদুদ। গাফুর অর্থ— অত্যন্ত ক্ষমাশীল। আর ওয়াদুদের বাংলা অনুবাদ করা হয়— প্রেমময়। তাহলে আয়াতটির অর্থ হলো, "আর তিনি অত্যন্ত ক্ষমাশীল, প্রেমময়।" আল-ওয়াদুদ নামটি নির্গত হয়েছে ক্রিয়াপদ 'ওদ্দা' থেকে। 'ওদ্দা' ক্রিয়াপদের অর্থ, ভালোবাসা। কিন্তু, এটা যে কোনো ধরণের ভালোবাসার নাম নয়। আমরা সবাই জানি, আরবিতে ভালোবাসা প্রকাশে প্রধান শব্দ হলো মাহাব্বা এবং হুব। আমাদের স্কলাররা বলেছেন, আরব...বাকিটুকু পড়ুন

০ টি মন্তব্য      ৫১ বার পঠিত         

বিয়ের পথ সহজ করে দিন...

লিখেছেন Shahmun ২০২২-০৪-১৪ ১৯:২১:১৫

আমাদের সমাজে বিয়ের ক্ষেত্রে এক অদ্ভুত প্রথা চালু রয়েছে। যেমন কোন তরুণ-তরুণী যদি তার থেকে বয়সে বেশ বড় বা তালাকপ্রাপ্ত কাউকে বিয়ে করার ইচ্ছা পোষণ করে, তাহলে আমাদের সমাজের অধিকাংশ মানুষের প্রতিক্রিয়া হবে এটা যে, "ভাই/ বোন, তুমি কি পাগল হয়ে গেছো? তোমার কি কোন কিছু কম আছে? " ইত্যাদি। কিন্তু এই রকম মনোভাব আমাদের মাঝে কিভাবে আসলো? কোথা থেকে আমরা শিখলাম? এটা তো আমাদের রাসুল সাঃ এর সুন্নাহের একেবারেই বিপরীত আচরণ। কোন জিনিসকে গুরুত্ব দিতে হবে আর কোনটি গুরুত্বহীন, সেটা আল্লাহ পাক ও তার তার রাসুল সাঃ...বাকিটুকু পড়ুন

০ টি মন্তব্য      ৪২ বার পঠিত         

ইখওয়ানুল ‍মুসলিমিনের ইসলাম এবং কিছু কথা...

লিখেছেন Shahmun ২০২২-০৪-১৪ ১৯:১০:৩৯

    একবার ইমাম হাসান আল বান্নাকে প্রশ্ন করা হল, ‘ইখওয়ানুল মুসলিমিন ইসলাম মানে কী বুঝে?’ ইমাম হাসান আল বান্না বললেন— ‘ইখওয়ানের কাছে ইসলাম কেবল আকিদা-বিশ্বাসের নাম নয় অথবা কেবল আনুষ্ঠানিক ইবাদত-বন্দেগিও নয়। ইখওয়ানের কাছে ইসলাম কেবল চারিত্রিক সৌন্দর্যেরও নাম নয় কিংবা শুধু তরিকত ও পীর-মুরিদিও নয়। বরং ইখওয়ানের কাছে ইসলাম এর চেয়েও ব্যাপক এবং আরও বিস্তৃত বিষয়। ইখওয়ানের কাছে ইসলাম হলো, আকিদা ও বিশ্বাস— যার মূল ভিত্তি তাওহিদ। ইখওয়ানের কাছে ইসলাম হলো,...বাকিটুকু পড়ুন

০ টি মন্তব্য      ৫২ বার পঠিত         

আমাদের রাহবার জনাব মকবুল আহমাদ

লিখেছেন আফগানী ২০২২-০৪-১৪ ১২:০৬:১৪

  হিন্দুত্ববাদ তথা মুশরিকদের বিরুদ্ধে আজাদির লড়াইয়ে তিনি ছিলেন অবিচল, শান্ত, দৃঢ়, সোম্য একজন সিপাহসালার। তাঁর কথা বলা লাগতো না, চেহারা দেখেই আমরা লড়াইয়ে অবিচল থাকার সাহস পেতাম। তিনি বৃদ্ধ বয়সেও আমাদের নেতৃত্ব দিয়েছেন। যখনই তাঁর মনে হয়েছে অসুস্থতা তাঁকে যোগ্য নেতৃত্ব থেকে দূরে রেখেছে। তিনি সাথে সাথেই পদত্যাগ করে যোগ্য লোকের কাছে নেতৃত্ব বুঝিয়ে দিয়েছেন। নেতৃত্বের প্রতি লোভহীনতা শুধু মুখে বলতেন না, বাস্তবেও দেখিয়ে গেছেন।    তিনি সাক্ষ্য হয়ে আছেন কীভাবে চরম দুঃসময়ে শান্ত ও অবিচল...বাকিটুকু পড়ুন

০ টি মন্তব্য      ৪৯ বার পঠিত         

 নিউজ আপডেট

 এ সপ্তাহের সর্বাধিক মন্তব্যকৃত পোস্ট

 আর্কাইভ